ভ্যাকসিনের সম্ভাব্য মূল্য জানালো মডার্না

2
Print Friendly, PDF & Email

ইন্টারন্যাশনাল নিউজ ডেস্ক:
বিশ্বব্যাপী যেসব কোম্পানি করোনার ভ্যাকসিন আবিস্কারে কাজ করছে তার মধ্যে অন্যতম যুক্তরাষ্ট্রের বায়োটেকনোলজি কোম্পানি মডার্না। সম্প্রতি প্রতিষ্ঠানটি দাবি করে, তাদের ভ্যাকসিন প্রায় ৯৫ শতাংশ (৯৪ দশমিক ৫ শতাংশ) কার্যকর বলে পরীক্ষায় দেখা গেছে। ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানিয়েছে, আগামী বছরের শুরুতেই মডার্নার ৫০ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন যুক্তরাজ্যের বাজারে আসতে পারে।

জারে আসার আগে মডার্না ভ্যাকসিনের সম্ভাব্য মূল্য জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। এক্ষেত্রে সরকারের কাছে প্রতি ডোজ করোনা টিকার দাম ২৫ থেকে ৩৭ ডলার করে রাখবে মডার্না। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় ২ হাজার ১৮৮ টাকা থেকে ৩ হাজার ১৩৫ টাকা দাঁড়ায়।

প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী স্টিফেন ব্যানসেল জার্মানির একটি সাপ্তাহিককে এ কথা জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ফ্লুর টিকার মতোই প্রায় একই খরচ করোনার ভ্যাকসিনের। এই খরচ ১০ থেকে ৫০ মার্কিন ডলারের মতো।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের সংশ্লিষ্ট এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, প্রতি ডোজ ২৫ ডলারের কম মূল্যে লাখ লাখ করোনার টিকা পেতে মডার্নার সঙ্গে একটি চুক্তিতে যেতে চায় ইউরোপীয় কমিশন।

আর এই চুক্তির বিষয়ে মডার্নার প্রধান নির্বাহী জানান, এখনো কোনো চুক্তি সই হয়নি। তবে আমরা ইউরোপকে টিকা সরবরাহ করতে চাই। আমরা গঠনমূলক আলোচনায় আছি।

এদিকে, চলতি বছরের শেষ নাগাদ ফাইজার এনটেকের ৪ কোটি ডোজও বাজারে আসতে পারে বলে জানা গেছে। এছাড়া ২০২১ সালের মাঝামাঝি সময়ে বেলজিয়ামের ওষুধ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান জানসেনের ৩ কোটি ডোজ পাওয়ার আশা করা হচ্ছে।

প্রতিদিনই করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। ভ্যাকসিন বাজারে আসার আগ পর্যন্ত স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে মেনে চলতেই হবে। তবে যে প্রতিষ্ঠানই আগে ভ্যাকসিন আনুক, যতো দ্রুত সম্ভব, আশা করি, সেটির ডোজ পাবে যুক্তরাজ্য, জানিয়েছেন দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী।