অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী ও শিশুকে হত্যা: স্বামীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর

4
Print Friendly, PDF & Email

গাজীপুর থেকে করসপন্ডেন্ট:
লক্ষীপুরের রামগতিতে ৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী ও দুই বছর বসয়ী শিশুকন্যাকে হত্যার দায়ে গাজীপুরের কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ এ বন্দী আব্দুল গফুর নামে এক কয়েদীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়েছে।

রোববার রাত ১১ টা ৫৫ মিনিটে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করে কারাগার কর্তৃপক্ষ। আব্দুল গফুর লক্ষীপুরের রামগতি থানার দক্ষিণ চরলরেঞ্জ এলাকার মৃত শামসুল হকের ছেলে।

এ সময় গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিট্রেট আবুল কালাম আজাদ, জিভিল সার্জন ডাক্তার মোহাম্মদ খায়রুজ্জামান উপস্থিত ছিলেন। কাশিমপুর কারাগার-২ এর সিনিয়র জেলসুপার আব্দুল জলিল রায় কার্যকরের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

২০০৬ সালের ৮ অক্টোবর আব্দুল গফুরের বিরুদ্ধে লক্ষীপুরের রামতি থানায় পারিবারিক কলহের জেরে ৫ মাসের অন্ত:সত্ত্বা স্ত্রী ও দুই বছর বয়সী কন্যা শিশুকে হত্যার দায়ে মামলা হয়। এ মামলায় ২০০৮ সালের ২৮ এপ্রিল লক্ষীপুরের অতিরিক্ত দায়রা জজ আদালতের বিচার তাকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দেয়। দীর্ঘ আইনি প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ার পর গত রাতে এ রায় কার্যকর করে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার কর্তৃপক্ষ।