ধর্মীয় ব্যাপারে কেউ আমাকে ফাঁসাতে চাইছেঃ আলমগীর

১৫ই অক্টোবর, ২০২০ || ০৩:২০:২৯
10
Print Friendly, PDF & Email

কালচারাল ডেস্কঃ
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক নিয়ে ঝামেলায় পড়েছেন ঢাকাই চলচ্চিত্রের একসময়ের জনপ্রিয় নায়ক আলমগীর। তিনি বলেন, কে বা কারা তার নামে একটি ভুয়া ফেসবুক পেজ খুলে সেখান থেকে ধর্ম বিষয়ক স্টেটমেন্ট দিয়ে যাচ্ছে। এতে করে বিব্রতকর পরিস্থিতির  মুখে পড়তে হচ্ছে তাকে। 

অথচ অভিনেতা আলমগীরের ফেসবুকে কোন অফিসিয়াল পেজ নেই। তার একমাত্র ফেসবুক আইডি হচ্ছে এম.এ. আলমগীর নামে। এর বাইরে ফেসবুকে কোন পেজ বা একাউন্ট নেই তার। যেগুলো আছে সেগুলো অন্যদের নিয়ন্ত্রণে।

আলমগীর বলেন,‘আমি ধর্ম নিয়ে কোন প্রকার মন্তব্য বা  স্টেটম্যান্ট কোথাও দেইনি। ফেসবুকেও না। অথচ আমার নামে ভুয়া ফেসবুকে পেজ খুলে কারা যেনো এ বিষয়টিকে নিয়ে নানা মন্তব্য প্রকাশ করে যাচ্ছে। কেন বা কী উদ্দেশ্যে কারা এমনটি করছেন তা আমার বোধগম্য নয়। এতে তাদের লাভই বা কি সেটাও জানিনা। শুধু শুধু আমার ক্ষতি করার চেষ্টা ছাড়া আর কিছুই না।’

এমনটি যারা করছেন তাদের এমন হীন কাজ থেকে বিরত থাকার আহ্বানও করেছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া এ অভিনেতা। সেই সঙ্গে গুজব থেকে সবাইকে সজাগ থাকারও আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘যারা এমনটি করছেন তাদের এমনটি আর না করার আহ্বান জানাই। আর দেশবাসীসহ আমার যারা ভক্ত গুনগ্রাহী  ও শুভাকাঙ্খী আছেন তাদের উদ্দেশ্যে বলছি আমার কোন ফেসবুক পেজ নেই। ওই ভুয়া পেজের মন্তব্যের বিষয়ে সজাগ থাকবেন।’

চিত্রনায়ক আলমগীর দেশের একজন বরেণ্য অভিনেতা। একাধারে নায়ক, প্রযোজক ও পরিচালকও তিনি। ১৯৭২ সালের ২৪ জুন প্রয়াত বরেণ্য চলচ্চিত্র পরিচালক আলমগীর কুমকুমের নির্দেশনায় ‘আমার জন্মভূমি’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে ক্যারিয়ার শুরু করেন। এপর্যন্ত ২২৫টিরও বেশি সিনেমাতে অভিনয় করেছেন তিনি। আর প্রযোজক হিসেবে আত্মপ্রকাশ কেরন ‘ঝুমকা’ সিনেমার মাধ্যমে। এরপর ১৯৮৬ নির্মাণে আসেন তিনি। তার পরিচালিত প্রথম ছবি ‘নিষ্পাপ’ । সর্বশেষ ‘একটি সিনেমার গল্প’ সিনেমাটি নির্মাণ করেন  এ অভিনেতা।