ট্রাম্প-বাইডেনের বিতর্ক বাতিল

14
Print Friendly, PDF & Email

ইন্টারন্যাশনাল নিউজ ডেস্ক:
১৫ অক্টোবরের পূর্ব নির্ধারিত মার্কিন প্রেসিডেন্সিয়াল বির্তক অনুষ্ঠান বাতিল করেছে দেশটির প্রেসিডেন্সিয়াল ডিবেট কমিশন (সিপিডি)। শুক্রবার (৯ অক্টোবর) এক বিবৃতিতে কমিশন এ তথ্য জানিয়েছে। ভার্চুয়ালি বিতর্ক আয়োজন নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং ডেমোক্র্যাট দলীয় প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বাইডেনর মধ্যকার মতানৈক্যের জেরে অনুষ্ঠান বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

এক বিবৃতিতে সিপিডি জানায়, মায়ামিতে ১৫ অক্টোবর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া বিতর্ক বাতিল করা হয়েছে। কমিশন জানায়, সিপিডি ২২ অক্টোবর সবশেষ এবং চূড়ান্ত বিতর্ক আয়োজনে প্রস্তুতি নিচ্ছে।

১ অক্টোবর করোনায় আক্রান্ত হন ডোনাল্ড ট্রাম্প। শনিবার থেকে তার নির্বাচনী প্রচারণা পুনরায় শুরুর কথা রয়েছে। ট্রাম্প ভার্চুয়াল বিতর্কে অংশ নিতে অস্বীকৃতি জানানোর পর, কমিশন বহুল কাঙ্ক্ষিত এ আয়োজন বাতিলের সিদ্ধান্ত নেয়।

বৃহস্পতিবার ফক্স বিজনেস নিউজ নেটওয়ার্ককে দেয়া সাক্ষাৎকারে ট্রাম্প জানান, আমি ভার্চুয়াল বিতর্কে অংশ নেবো না।

বিতর্ক বাতিলের প্রতিক্রিয়ায় এক বিবৃতিতে ট্রাম্পের প্রচারণা শিবির জানিয়েছে, পূর্ব নির্ধারিত ১৫ অক্টোবরের বিতর্ক বাতিলের চিকিৎসা সংক্রান্ত কোনো কারণ নেই। কারণ প্রেসিডেন্ট করোনা থেকে সেরে উঠেছেন। তিনি ভালো আছেন এবং বিতর্কের জন্য প্রস্তুত ছিলেন।

বিবৃতিতে ২২ এবং ২৯ অক্টোবর চূড়ান্ত দুটি বিতর্ক আয়োজনের জন্য কমিশনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে ট্রাম্পের প্রচারণা শিবির। বিবৃতিতে আরো বলা হয়, পক্ষপাতদুষ্ট কমিশন বাইডেনকে রক্ষা এবং প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী দু’জন প্রার্থীর বক্তব্য শোনা থেকে ভোটারদের বিরত রাখছে। কমিশনের এমন আচরণ বন্ধ করার এখনই সময়।

এর আগে বাইডেনের প্রচারণা শিবির জানায়, টাউন হলের ১৫ অক্টোবরের বির্তক প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে জবাবদিহিতা থেকে রক্ষার জন্য পেছানো হয়েছে। সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ওইদিন রাতে টাউন হলে একই সময়ে সমাবেশ করবেন বলে জানানো হয়।

তবে বিতর্ক বাতিলে কমিশনের আনুষ্ঠানিক বিবৃতির তাৎক্ষণিক কোনো প্রতিক্রিয়া জানায়নি বাইডেনের প্রচারণা শিবির।

শুক্রবার বিবৃতিতে সিডিপি জানায়, উভয় প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী ২২ অক্টোবর বিতর্ক অংশ নিতে রাজি হয়েছেন। টেনেসির ন্যাশভিলের বেলমন্ট বিশ্ববিদ্যালয়ে দ্বিতীয় বিতর্ক অনুষ্ঠিত হবে।

কমিশন জানায়, ২২ অক্টোবরের বিতর্কের বিষয় থাকছে ‘স্বাস্থ্য সুরক্ষা ইস্যু’। এতে করোনা পরীক্ষা, মাস্ক পরিধান করা, সামাজিক দূরত্ব মেনে চলাসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধিও অন্তর্ভুক্ত থাকবে।

৩ নভেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ২ সপ্তাহেরও কম সময় আগে দ্বিতীয় বির্তক অনুষ্ঠিত হবে। এতে সঞ্চালকের দায়িত্ব পালন করবেন এনবিসি নিউজের ক্রিস্টেন ওয়েলকার।

ট্রাম্প-বাইডেনের প্রথম প্রেসিডেন্সিয়াল বিতর্ক ২৯ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত হয়। বিতর্কে তারা একে অপরের দিকে ঘৃণ্য বক্তব্য এবং তীর্যক মন্তব্য ছোঁড়েন।

ট্রাম্প বাইডেনকে বামপন্থী সমাজতন্ত্রের প্রচারক আখ্যা দেন। বাইডেন ট্রাম্পকে বর্ণবাদী আখ্যা দেন। বক্তব্যে বারবার বাধা দিয়ে তাকে বিরক্ত করায় ট্রাম্পকে ‘সাট আপ’ বলে চুপ থাকতে বলে বাইডেন।

একে বিতর্ক বলতে নারাজ ওহাইয়ো স্টেট ইউনিভার্সিটির রাষ্ট্রবিজ্ঞানের অধ্যাপক পল বেক। ট্রাম্প-বাইডেনের প্রথম বিতর্ককে তিনি ভয়ংকর বলে অভিহিত করেছেন।