দেশে স্পর্শবিহীন টয়লেট উদ্ভাবন করলো ভূমিজ

১৪ই সেপ্টেম্বর, ২০২০ || ১০:২০:২৩
9
Print Friendly, PDF & Email

সিনিয়র করসপন্ডেন্ট, ঢাকাঃ
বাংলাদেশের নতুন প্রজন্মের সামাজিক উদ্যোগ ভূমিজ লিমিটেড সম্প্রতি বাংলাদেশে তৈরি করেছে স্পর্শবিহীন টয়লেটের উদ্ভাবনী এক ধারণা।

নতুন বাংলাদেশের উদ্যক্তা হিসেবে ভূমিজ এবার বাংলাদেশে স্পর্শবিহীন টয়লেটের আইডিয়া বাস্তবায়ন করেছে। ইউনিলিভার বাংলাদেশে লিমিটেড বাংলাদেশ এবং ট্রান্সফর্ম (ইউনিলিভার গ্লোবাল এবং ডিএফআইডির একটি যৌথ উদ্যোগ) এর আর্থিক ও অন্যান্য সহায়তায় ভূমিজ ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় ও হাসপাতালের ডাক্তার,স্বাস্থ্যকর্মী, রোগী ও তাঁদের আত্মীয় স্বজনদেরকে প্রাণঘাতী কোভিড-১৯ থেকে নিরাপদ রাখতে ইতোমধ্যেই হাসপাতাল দুটিতে স্পর্শবিহীন টয়লেট স্থাপন করেছে ভূমিজ।

স্পর্শবিহীন টয়লেট ব্যবস্থার মাধ্যমে টয়লেট এর ফ্লাশ, টয়লেট সিট কাভার, ওয়াশ বেসিন ট্যাপ, লিকুইড সাবান ইত্যাদি হাতের স্পর্শ ছাড়াই ব্যবহার করা যাবে। কোভিড-১৯ সহ অন্যান্য যেসকল ভাইরাস বা রোগজীবাণু হাতের স্পর্শের মাধ্যমে ছড়ায় সেগুলো এই উদ্ভাবনের মাধ্যমে উল্লেখযোগ্য হারে হ্রাস পাবে বলে আশা করা যায়।

ভূমিজ’র প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও ফারহানা রশিদ বলেছেন, “প্রতিষ্ঠার পর থেকেই আমরা আমাদের জনস্বাস্থ্য খাতে নগর উন্নয়নের বিভিন্ন প্রকল্পের অংশ হিসেবে স্বাস্থ্যসম্মত পাবলিক টয়লেট সুবিধা নিশ্চিত করার জন্য নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি। কিন্তু কোভিড-১৯ আবির্ভাবের পর থেকে নগরবাসীর মধ্যে পাবলিক টয়লেট ব্যবহারে এক প্রকার ভীতি লক্ষ করা যাচ্ছে, কারণ প্রতিদিন অসংখ্য মানুষ এসব টয়লেট ব্যবহার করেন এবং ব্যবহার্য উপকরণ হাত দিয়ে ধরেন, যা এও মুহূর্তে বিপজ্জনক। তাই এই সমস্যার সমাধান দিতে আমরা ভাবতে লাগলাম কিভাবে হাতের স্পর্শ ছাড়াই মানুষ টয়লেট এর বিভিন্ন উপকরণ ব্যবহার করতে পারেন, সেই ভাবনা থেকেই আমরা উদ্ভাবন করলাম স্পর্শবিহীন টয়লেট। এই উদ্ভাবন কোভিড-১৯ ও অন্যান্য যেসকল ভাইরাস স্পর্শের মাধ্যমে ছড়ায় সেগুলোকে উল্লেখযোগ্য হারে রোধ করবে। স্পর্শবিহীন টয়লেটটি অনেক লোকসমাগম হয় এরকম স্থান, যেমনঃ অফিস, কল-কারখানা, ব্যাংক এবং শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানেও ব্যবহারোপযোগী।”
ভুমিজ এবং তাদের উদ্ভাবিত স্পর্শবিহীন টয়লেট সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন – https://www.facebook.com/bhumijo/