প্রাসাদ রাজনীতির চক্রান্তে আমার সংসার ভেঙেছে: বিদিশা

৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২০ || ০৭:৪২:১২
12
Print Friendly, PDF & Email

ডিষ্ট্রিক্ট করসপন্ডেন্ট, রংপুর:
প্রয়াত রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের সাবেক স্ত্রী বিদিশা এরশাদ বলেছেন, প্রাসাদ রাজনীতির চক্রান্তের কারণে এরশাদের সঙ্গে আমার বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছিল। এরশাদের মৃত্যুর আগে আমি তবু ভালো ছিলাম। তার মৃত্যুর পর আমাদের একমাত্র ছেলে এরিক ও তার সম্পদ লুটপাট করার জন্য ষড়যন্ত্র অব্যাহত আছে। হুমকি-ধামকি চলছে।

সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রংপুরের পল্লী নিবাসে প্রয়াত রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের কবর জিয়ারতের আগে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

ছেলে এরিক এরশাদ ছাড়াও এরশাদ গঠিত জোট বিএনএ’র সভাপতি সেকেন্দার আলী মনি, মুখপাত্র শেখ মোস্তাফিজার রহমান, মহাসচিব জাহাঙ্গীর হোসেন, সমন্বয়কারী আক্তার হোসেন, হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ ট্রাস্টের পরিচালক ও এরিক এরশাদের লিগাল অ্যাডভাইজার অ্যাডভোকেট কাজী রুবায়েত হাসান, বিদিশা এরশাদের একান্ত সহকারী সচিব সায়েম সাকলায়েন রাজিব উপস্থিত ছিলেন।

বিদিশা বলেন, যারা এক সময় এরিকের মাধ্যমে নমিনেশন নিয়েছেন, মন্ত্রী-এমপি হয়েছেন তারা এখন তার কোনো খোঁজ রাখেন না। এরশাদের মৃত্যুর আগেও আমাদের নিয়ে ষড়যন্ত্র হয়েছে, এখনও হচ্ছে। জিডি, হামলা-মামলা, হুমকি-ধামকি সব কিছু আমাকে সহ্য করতে হচ্ছে। এখন ষড়যন্ত্র চলছে কীভাবে এরিকের সম্পদ লুটপাট করা যায়।

তিনি আরও বলেন, আমি এরশাদের সম্পদের লোভে রংপুর আসিনি। কবর জিয়ারতের মাধ্যমে তার দোয়া নিয়ে আমি রাজনীতির মাঠে সক্রিয় হতে চাই। এরিক ও তার সম্পদকে রংপুরবাসীর হাতে তুলে দিলাম। আপনারা দেখে রাখবেন।

পরে এরিককে নিয়ে এরশাদের কবর জিয়ারত ও মোনাজাতে অংশ নেন বিদিশা। ফুল দিয়ে কবরে শ্রদ্ধা জানান। এর আগে দুপুর ১২টায় সৈয়দপুর বিমানবন্দর থেকে এসে সোজা পল্লী নিবাসে যান তিনি। সেখানে এরিক তার বাবা এরশাদের কবরে চুমু খান।

এ ব্যাপারে জাতীয় পার্টির নেতাদের বক্তব্য সঠিক কারণ তাদের জানা নেই। রংপুরে বিদিশা আসার ঘটনায় স্থানীয় জাপা নেতাকর্মীদের মাঝে ব্যাপক আলোচনা চলছে। জাপা মহানগর সভাপতি ও সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমানের সঙ্গে কথা বলার জন্য ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে তিনি কল ধরেননি।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করলে তিনিও ফোন ধরেন নাই। আর বিদিশা তার রংপুরে আসার কারণ পরে জানাবেন বলে জানিয়েছেন। সোমবার রাতেই তিনি সৈয়দপুর বিমানবন্দর থেকে রাত সাড়ে ৮টায় ঢাকার পথে রওনা হয়েছেন।