যুবলীগ নেতা সম্রাট ৩টি বিদেশী পিস্তল ও সহযোগীসহ কুষ্টিয়ায় র‌্যাবের জালে বন্দী

২৭ই জুলাই, ২০২০ || ০৭:৪৬:৪০
99
Print Friendly, PDF & Email

ডিষ্ট্রিক্ট করসপন্ডেন্ট, কুষ্টিয়া:
কুষ্টিয়া শহর যুবলীগের আলোচিত সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক জেড এম সম্রাটকে (৩১) বিদেশী পিস্তল, ম্যাগাজিন ও গুলিসহ র‌্যাব-১২ গ্রেফতার করেছে। এ সময় দ্বীন ইসলাম রাসেল (২৮) নামে তার এক সহযোগীকেও আটক করেছে র‍্যাব।

সম্রাট ও তার সহযোগী রাসেল নিষিদ্ধ চরমপন্থী সংগঠন গণমুক্তি ফৌজের প্রধান মোষ্টওয়ান্টেড সন্ত্রাসী মুকুলের শীর্ষ সহযোগী হিসেবে কাজ করতো বলেও জানিয়েছে র‍্যাব।

সোমবার (২৭ জুলাই) ভোর ৪টার দিকে কুষ্টিয়া সদর থানাধীন বড় আইলচরা এলাকা থেকে র‍্যাবের আভিযানিক দল তাদের আটক করে।

সম্রাট কুষ্টিয়া শহরের রেনউইক-কমলাপুর এলাকার আমিনুল ইসলামের ছেলে এবং রাসেল মজমপুর এলাকার মৃত গোলাম রসুলের ছেলে।

সিরাজগঞ্জস্থ র‍্যাব-১২ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

র‍্যাব জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সিরাজগঞ্জ র‍্যাব-১২ এর সিও লেফট্যানেন্ট কর্ণেল খাইরুল ইসলামের (পিএসসি) নির্দেশে পাবনা ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার আমিনুল ইসলামের নেতৃত্বে র‍্যাবের একটি আভিযানিক দল কুষ্টিয়া সদর উপজেলার বড় আইলচরা এলাকায় অভিযান চালায়। এ সময় র‍্যাব ৩টি বিদেশী পিস্তল, ৩টি ম্যাগজিন ও ৯ রাউন্ড গুলিসহ কুষ্টিয়া শহর যুবলীগের সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক জেড এম সম্রাট ও তার সহযোগী রাসেলকে আটক করে।

তিনি আরও বলেন, সম্রাট দীর্ঘদিন ধরে অবৈধ অস্ত্র বহন করে কুষ্টিয়ার বিভিন্ন দপ্তরে টেন্ডারবাজিসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড করে আসছিলেন। সে ও তার সহযোগী নিষিদ্ধ চরমপন্থী সংগঠন গণমুক্তি ফৌজের প্রধান মোষ্টওয়ান্টেড সন্ত্রাসী মুকুলের শীর্ষ সহযোগী হিসেবে কাজ করতো।