স্কুলছাত্রীর বুকে ছুরিকাঘাত করল বখাটে

33

নিউজবি২৪, গাইবান্ধাঃ
গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে এক স্কুলছাত্রীর বুকে ছুরিকাঘাত করেছে আশিক নামের এক বখাটে। এতে ওই ছাত্রীর স্তনের বেশির ভাগ অংশই কেটে গিয়ে ঝুলে পড়েছে। আশিকুর রহমান আশিক গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার নাকাই ইউনিয়নের কুঞ্জ নাকাই গ্রামের ফজলুর রহমানের ছেলে।

জানা গেছে, বখাটে আশিক রামপুরা দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্রীকে দীর্ঘদিন ধরে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। ওই ছাত্রীকে বিভিন্ন সময়ে নানা বাজে প্রস্তাবও দিত সে। তার প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ক্ষুব্ধ হয় আশিক।

রোববার (২৫ আগস্ট) দিবাগত রাত ১টার দিকে বখাটে আশিক জানালা দিয়ে ওই ছাত্রীর বুকে ধারালো ছুরি দিয়ে আঘাত করে পালিয়ে যায়। এতে ছাত্রীটির স্তনের বেশির ভাগ অংশই কেটে যায়। পরে তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় গাইবান্ধা জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার বুকে ৩২টি সেলাই করে রক্তক্ষরণ বন্ধ করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

এ ব্যাপারে ভুক্তভোগী ছাত্রীর মা শাহানা বেগম বলেন, ‘আশিক আমার মেয়েকে দীর্ঘদিন ধরে বিরক্ত করছে। আমরা প্রতিবাদ করায় ক্ষিপ্ত হয়ে সে আমার মেয়ের বুকে ছুরিকাঘাত করে। এতে তার স্তনের চারপাশে ৩২টি সেলাই দেয়া হয়।’ এ কথা বলেই কান্নায় ভেঙে পড়েন তিনি।

এলাকাবাসী জানান, স্থানীয় সাজু মেম্বারের ছত্রচ্ছায়ায় দীর্ঘদিন যাবৎ তার ভাতিজা আশিকসহ অন্য ভাই-ভাতিজারা এলাকায় সন্ত্রাসী কার্যকলাপ চালিয়ে আসছে।

এ ব্যাপারে গোবিন্দগঞ্জ থানার ওসি মেহেদী হাসান বলেন, এ ঘটনায় গোবিন্দগঞ্জ থানায় ৬ জনের নাম উল্লেখ করে মেয়েটির বাবা অভিযোগ করেছেন। অভিযোগের ভিত্তিতে সোমবার (২৬ আগস্ট) রাতেই আশিকসহ দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ঘটনাটি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও তিনি জানান।