অবশেষে প্লটের ‘বৈধ’ আবেদন প্রত্যাহার করলেন রুমিন

38

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, ঢাকাঃ
রাজধানীর পূর্বাচলে ১০ কাঠা প্লট চেয়ে গৃহায়ণ ও গণপূর্তমন্ত্রী বরাবর করা তোলপাড় সৃষ্টিকারী আবেদনটি অবশেষে প্রত্যাহার করেছেন বিএনপির সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা।

দলীয় নেতাকর্মীদের অনুভূতির প্রতি শ্রদ্ধা রেখে তিনি ওই আবেদন প্রত্যাহার চাইছেন বলেও উল্লেখ করেছেন ওই চিঠিতে। তবে বিষয়টি গণমাধ্যমে প্রকাশ হওয়ার পরে চারদিকে সমালোচনার ঝড় ওঠায় চিঠি প্রত্যাহারের কারণ বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবার (২৭ আগস্ট) দুপুরে প্লট আবেদনের চিঠি প্রত্যাহার চেয়ে গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ে নতুন চিঠিটি পাঠিয়েছেন রুমিন ফারহানা। বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইং কর্মকর্তা শায়রুল কবির খানও এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

রুমিন ফারহানা জাতীয় সংসদের প্যাডে চিঠিতে লিখেছেন, ‘আমার দল বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)-এর প্রাণ তৃণমূলের নেতাকর্মী ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের অনুভূতির প্রতি পূর্ণ শ্রদ্ধা জানিয়েই গত ৩ আগস্ট, ২০১৯ তারিখে সংসদের দাফতরিক ফরম্যাটে করা আমার পূর্বাচলের প্লটের আবেদনটি আমি প্রত্যাহার করে নিচ্ছি। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য অনুরোধ করা হলো।’

এর আগে, গত ৩ আগস্ট সংসদ সদস্যের প্যাডে ১০ কাঠার একটি প্লটের জন্য আবেদন করেন রুমিন। ২৫ আগস্ট এ খবর বিভিন্ন জাতীয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে ব্যাপক সমালোচনা তৈরি হয়। বিএনপির অনেক নেতাকর্মীও বলেন, রুমিন ফারহানা সংরক্ষিত নারী এমপি হিসেবে সংসদে দাঁড়িয়ে বারবার সরকারকে অবৈধ বলে আখ্যা দিয়েছেন। তা সত্ত্বেও পূর্বাচলে সরকারিভাবে প্লটের আবেদন করে তিনি নৈতিকতার পরিচয় দিতে পারেননি।

এ বিষয়ে অবশ্য রুমিনের বক্তব্য ছিল, তিনি রাষ্ট্রের কাছে আবেদন করেছেন, সরকারের কাছে নয়। তিনি বলেন, ‘আমার চিঠি বৈধ, কিন্তু এই সরকার অবৈধ।’

এদিকে, প্লটের আবেদন প্রত্যাহারের বিষয়ে রুমিন ফারহানা বলেন, গত ২৬ আগস্ট আবেদন প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম। দলের নেতাকর্মীরা আমার প্লটের আবেদনে কষ্ট পেয়েছেন। সেদিনই আবেদন প্রত্যাহার করে নিতাম। কিন্তু আমি নির্বাচনি এলাকায় থাকার কারণে ওইদিন প্রত্যাহার করতে পারিনি। আজই মন্ত্রণালয়ে আবেদন প্রত্যাহার চেয়ে চিঠি পাঠিয়েছি। আমার দলের নেতাকর্মীদের আবেগ, অনুভূতির প্রতি সম্মান দেখিয়ে আমি আবেদন প্রত্যাহারপত্র পাঠিয়েছি। মন্ত্রীর দপ্তর আবেদন গৃহিত মর্মে প্রদত্ত সীল ও স্বাক্ষর দিয়ে চিঠির অনুলিপিও দিয়েছে।