দেশে করোনা আক্রান্তরা অর্ধেকই গ্রামের: ডিজি হেল্থ

14
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন রিপোর্ট:
দেশে বর্তমানে শনাক্ত হওয়া করোনা রোগীদের মধ্যে অর্ধেকই গ্রামের বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম। একইসঙ্গে শিগগিরই ফের গণটিকাদান কর্মসূচির অনলাইন নিবন্ধন শুরু হবে বলে জানান তিনি।

সোমবার (৫ জুলাই) দুপুর ১২টায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে অনুষ্ঠিত এক সভা শেষে সাংবাদিকের এসব তথ্য তিনি।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বলেন, দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত রোগীদের ৫০ শতাংশের বেশি গ্রামের। আমরা রোববার ৪৫টি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ও চিকিৎসকদের সঙ্গে দীর্ঘ তিন ঘণ্টার বেশি কথা বলেছি। তারা বলেছেন, রোগীর অধিকাংশের বেশি গ্রামের। রোগীরা হাসপাতালে আসছেন রোগে আক্রান্ত হওয়ার বেশ পরে, যখন পরিস্থিতি অনেক খারাপ হয়ে পড়ছে।

তিনি বলেন, শিগগিরই গণটিকাদান কর্মসূচির অনলাইন নিবন্ধন শুরু হবে। তবে এখন বয়সসীমা ৪০ থেকে কমিয়ে ৩৫ করা হবে। আগে ৪০ ঊর্ধ্ব ব্যক্তিরা টিকার নিবন্ধন করতে পারতেন। এখন থেকে ৩৫ ঊর্ধ্ব ব্যক্তিরাও নিবন্ধন করতে পারবেন।

টিকা সংকটের কারণে গত ২ মে থেকে গণটিকাদানের অনলাইন নিবন্ধন বন্ধ ঘোষণা করে সরকার। ওইদিন পর্যন্ত ৭২ লাখ ৪৮ হাজার ৮২৯ জন নিবন্ধন করেছিল।

এদিকে সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী মহামারি করোনার তাণ্ডবে সোমবার (৫ জুলাই) সকাল ৮টা পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় দেশের ১১ জেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এবং উপসর্গ নিয়ে ১১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এর মধ্যে ২৪ ঘণ্টায় কুষ্টিয়ায় সর্বোচ্চ ২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময় ৮৮৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ২৯২ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। জেলায় এটিই এখন পর্যন্ত একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু ও শনাক্ত। জেলায় এ পর্যন্ত ৮ হাজার ৭৬৬ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। আর মারা গেছেন ২৪৫ জন। সুস্থ হয়েছেন ৫ হাজার ৮২৩ জন।

এছাড়া রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। খুলনায় গত ২৪ ঘণ্টায় খুলনার চারটি হাসপাতলে আরও ১৭ জন, সাতক্ষীরায় ৮, চুয়াডাঙ্গায় ৯, টাঙ্গাইলে ৭, নাটোর ও কুড়িগ্রামে একজন করে, ময়মনসিংহে ১৫, চট্টগ্রামে ৫ এবং বরিশালে ১২ জনের মৃত্যু হয়েছে।