কঠোর লকডাউনে ঢাকায় দুপুর পর্যন্ত গ্রেপ্তার ৪২৯,গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা ৩০৯টি

16
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন রিপোর্ট:
চতুর্থ দিনের মতো রাজধানীসহ সারা দেশে চলছে কঠোর লকডাউন। করোনা সংক্রমণরোধে বিনা প্রয়োজনে বাসা থেকে রেব হওয়ার ওপর বিধিনিষেধ জারি করা হয়েছে।

অযথা ঘর থেকে বের হলেই গ্রেপ্তার অথবা জরিমানা করা হবে বলে কড়া বার্তা দিয়ে মাঠে অবস্থান নিয়েছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)।

রোববার (৪ জুলাই) দুপুর পর্যন্ত সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে বাইরে বের হওয়ায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে ৪২৯ জনকে।

দুপুর পর্যন্ত মোট ৩০৯টি গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা করেছে ট্রাফিক বিভাগ। এ সময় জরিমানা আদায় হয়েছে ৮ লাখ ৬৯ হাজার ৫০০ টাকা। রমনা, লালবাগ, মতিঝিল, ওয়ারী, তেজগাঁও, মিরপুর, গুলশান ও উত্তরা বিভাগে এ অভিযান পরিচালনা করে ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগ।

ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) ইফতেখায়রুল ইসলাম সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, লকডাউনের চতুর্থ দিনে সকাল থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত ডিএমপির আট বিভাগে সরকারি নিয়ম অমান্য করে বাইরে বের হওয়ায় ৪২৯ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এডিসি জানান, ডিএমপি পরিচালিত ভ্রাম্যমাণ আদালত ও ট্রাফিক বিভাগ ৩০৯টি গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা করেছে। ওসব মামলা থেকে ৮ লাখ ৬৯ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা আদায় হয়েছে।

এর মধ্যে, রমনা বিভাগে ৩৬টি গাড়ির মামলায় এক লাখ ১৫ হাজার ৫০০ টাকা, লালবাগ বিভাগে ৪৯টি গাড়ির মামলায় এক লাখ ১৪ হাজার ৫০০ টাকা, মতিঝিলে ২১টি গাড়ির মামলায় ৫৩ হাজার টাকা, ওয়ারী বিভাগে ২১টি গাড়ির মামলায় ৪৪ হাজার টাকা, তেজগাঁও বিভাগে ২৯টি গাড়ির মামলায় ৭৪ হাজার ৫০০ টাকা, মিরপুর বিভাগে ৯১টি গাড়ির বিরুদ্ধে করা মামলায় ৩ লাখ ৫ হাজার ৫০০ টাকা, গুলশান বিভাগে ২৫টি গাড়ির মামলায় ৬৫ হাজার ৫০০ টাকা এবং উত্তরা বিভাগে ৩৭টি গাড়ির বিরুদ্ধে করা মামলায় ৯৭ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।