সড়কে বেড়েছে গাড়ি-মানুষের আনাগোনাও

18
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন রিপোর্ট:
করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সারা দেশে চলছে সরকার ঘোষিত কঠোর বিধিনিষেধ (লকডাউন)। বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হওয়া সাত দিনের বিধিনিষেধের আজ শনিবার তৃতীয় দিন। গত দুদিনের তুলনায় শনিবার (৩ জুলাই) সড়কে মানুষের আনাগোনা বেড়েছে।

বিশেষ করে সকালে নিত্যপণ্যের বাজারে মানুষের উপস্থিতি ছিল বেশি। প্রধান সড়কের তুলনায় রাজধানীর অলিগলিতে মানুষের জটলা বেশি দেখা গেছে।

রাজধানীর মোহাম্মদপুর, কলেজগেট, শ্যামলী, পান্থপথ, ধানমন্ডি, ফার্মগেট, মগবাজার এলাকায় ব্যক্তিগত গাড়ি বেশি বের হয়েছে। এছাড়া সব গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টেই আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর তল্লাশি চৌকি বসানো হয়েছে। রাস্তায় রয়েছে ব্যারিকেড।

করোনার সংক্রমণ মোকাবিলায় দেশজুড়ে সাত দিনের কঠোর বিধিনিষেধের দ্বিতীয় দিনে গতকাল সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত কারণ ছাড়া ঘরের বাইরে বের হওয়ায় ২১৩ জনকে ২ লাখ ১৬ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। আটক করা হয়েছে ৩২০ জনকে। এর আগের দিন আটক করা হয় ৫৫০ জনকে।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় গত বৃহস্পতিবার থেকে সাতদিনের কঠোর বিধিনিষেধ চলছে। এবারের বিধিনিষেধ কার্যকরে পুলিশ, বিজিবির সঙ্গে সেনাবাহিনীও টহলে রয়েছে।

শনিবার সকাল থেকে ঢাকার কয়েকটি এলাকা ঘুরে দেখা যায়, ব্যক্তিগত গাড়ি, মাইক্রোবাস ও পণ্যবাহী গাড়িগুলোর চলাচল বেড়েছে। এছাড়া সড়কে প্রচুর মোটরসাইকেল ও রিকশা চলতে দেখা যায়।

প্রগতি সরণিতে চেকপোস্ট বসিয়েছেন সেনাসদস্যরা। এই চেকপোস্টে যানবাহনগুলো থামিয়ে চালক বা আরোহীদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। পুলিশ চালকের ড্রাইভিং লাইসেন্স পরীক্ষা করছে। একেবারেই যাঁরা অপ্রয়োজনে বের হয়েছেন, তাঁদের গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা দিচ্ছে ট্রাফিক পুলিশ।