সাংবাদিক নির্যাতনকারী ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি ডিইউজের

36
Print Friendly, PDF & Email

স্টাফ করসপন্ডেন্ট, ঢাকা:
সাম্প্রতিক সময়ে হেফাজত ইসলামের উগ্র কর্মীদের কাছে রাজধানী ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ, ব্রাহ্মণবাড়িয়াসহ বিভিন্নস্থানে সাংবাদিক লাঞ্চিত ও গণমাধ্যমের গাড়ি ভাঙ্গচুরের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) সভাপতি কুদ্দুস আফ্রাদ ও সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ আলম খান তপু।

আজ মঙ্গলবার প্রদত্ত এক বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, সাংবাদিকদের শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করে সংবাদ সংগ্রহের উপকরণ (ক্যামেরা ও গাড়ি) ভেঙ্গ স্বাধীন সংবাদ প্রবাহে মনস্তাত্ত্বিকভাবে ভীতি ও চাপ সৃষ্টির অপচেষ্টা চালানো হচ্ছে।

বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, চোখ রাঙিয়ে কিংবা শাসিয়ে সাংবাদিক সমাজকে বিভ্রান্ত করা যাবে না। এসব ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে দোষীদের চিহ্নিত করে অবিলম্বে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে সরকার ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি দাবি জানান নেতারা। ডিইউজে বিশ্বাস করে, কোনও সাংবাদিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ থাকলে অবশ্যই তার বিরুদ্ধে আইনানুগ পদক্ষেপ নেওয়া যায়। কারণ, সাংবাদিকেরা আইনের ঊর্ধ্বে নন। কিন্তু হামলা চালিয়ে শুধু ভীতিকর পরিবেশ তৈরি করা যায়। এতে স্বার্থবাদীরা ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করতে পারে। সাংবাদিক নেতারা বলেন, এই নৈরাজ্যবাদী সাম্প্রদায়িক শক্তির ক্রোধ ও আক্রমণ বন্ধ না হলে সাংবাদিক সমাজ কঠোর কর্মসূচি নিতে বাধ্য হবে।

দেশব্যাপী সাংবাদিক নির্যাতনের বিচার দাবিতে ডিইউজে আয়োজিত সমাবেশে প্রত্যেকটি সংবাদ মাধ্যম ও সাংবাদিক সংগঠনকে পাশে দাড়ানোর আহ্বান জানান ডিইউজে নেতারা।

বৃহস্পতিবার সমাবেশ:
দেশব্যাপী সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে আগামী ১ এপ্রিল, বৃহস্পতিবার বেলা ১২টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ডিইউজের উদ্যোগে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে। এতে ডিইউজে সদস্যসহ সকল সাংবাদিককে অংশ নেয়ার আহবান জানানো হচ্ছে।