মিয়ানমারে জান্তা সমর্থক ও বিরোধীদের তুমুল সংঘর্ষ

9
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন রিপোর্ট:
মিয়ানমারে এবার জান্তা সমর্থক ও জান্তা বিরোধীদের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে আহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন।

সেনা সমর্থক ও সেনাবাহিনীর বিরোধীদের তুমুল সংঘর্ষে বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) মিয়ানমারের ইয়াঙ্গুনের রাজপথ যেন পরিণত হয় রণক্ষেত্রে। অভিযোগ মিলেছে, সেনা বাহিনীর পক্ষে রাজপথে নেমে, বিক্ষোভকারীদের ওপর তুমুল হামলা চালান তারা।

ছুরিসহ দেশীয় অস্ত্র নিয়ে জান্তাপন্থিদের এমন হামলায় হতবাক সবাই। বিক্ষোভকারীরা বলছেন, এ ঘটনাটি মিয়ানমারের পরিস্থতিকে আরও জটিল করে তুলবে। আন্দোলনকারী একটি গোষ্ঠী জানায়, প্রতিবাদের সঙ্গে সম্পর্কিত কারণে এ পর্যন্ত ৭শ’ জনের বেশি মানুষকে গ্রেফতার করা হয়েছে, তাদের অভিযুক্ত করে সাজাও দেয়া হয়েছে।

এ অবস্থায় আরও কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলার ঘোষণা দিয়েছেন জান্তারিবোধীরা। শুক্রবারও তারা মিয়ানমারের বিভিন্নস্থানে অবস্থান নেন। গড়ে তোলেন প্রতিরোধ। ইয়াঙ্গুনে এবার অং সান সু চির বাসার সামনে গণতন্ত্রের দাবি নিয়ে বিক্ষোভ হয়।

এক বিক্ষোভকারী বলেন, ‘বেআইনিভাবে সু চিসহ রাজনৈতিক নেতাদের গ্রেফতার করা হয়েছে। এর প্রতিবাদ জানাই আমরা।’
অন্যান্য স্থানেও বিক্ষোভ অব্যাহত হয়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর চোখ রাঙানি উপেক্ষা করে গণতন্ত্রের এ লড়াই চলছে। তারা বলছেন, যুক্তরাষ্ট্র প্রশাসন তথা তাদের বাহিনীর সরাসরি হস্তক্ষেপ ছাড়া পরিস্থিতির উন্নতি হবে না। তাই অচিরেই পশ্চিমা বিশ্বকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তারা।