১৫ দিনের রিমান্ডে পাপিয়া ও তার স্বামী

24
Print Friendly, PDF & Email

সিনিয়র করসপন্ডেন্ট, ঢাকা:
তিন মামলায় বহিষ্কৃত যুব মহিলা লীগ নেত্রী শামীমা নুর পাপিয়া ও তার স্বামী মফিজুরের ১৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। মামলার অপর আসামিরা হলেন, পাপিয়ার স্বামী মফিজুর রহমান ওরফে সুমন, এই দম্পতির দুই ব্যক্তিগত সহকারী শেখ তায়্যিবা ও সাব্বির খন্দকার।

অস্ত্র ও মাদক আইনের দু’টিসহ তিন মামলায় তাদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য এ রিমান্ড মঞ্জুর করা হয়।

সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মাসুদুর রহমান এ আদেশ দেন। এর আগে দুপুরে মহানগর হাকিম আদালতে তাদের হাজির করা হয়। বিকালে শুনানি নিয়ে আদালতের বিচারক মাসুদ উর রহমান ১৫দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

বিমানবন্দর থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা (জিআরও) উপ-পরিদর্শক মাহমুদুর রহমান এ তথ্য জানিয়েছেন।

মামলার অপর আসামিরা হলেন, পাপিয়ার স্বামী মফিজুর রহমান ওরফে সুমন চৌধুরী ওরফে মতি সুমন (৩৮), সাব্বির খন্দকার (২৯) ও শেখ তায়্যিবা (২২)।

রোববার সকালে রাজধানীর ফার্মগেট ইন্দিরা রোডে পাপিয়ার বাসায় অভিযান চালিয়ে ১টি বিদেশি পিস্তল, ২টি ম্যাগজিন, ২০ রাউন্ড গুলি, ৫ বোতল বিদেশি মদ, ৫৮ লাখ ৪১ হাজার টাকা, ৫টি পাসপোর্ট, ৩টি চেক, বেশ কিছু বিদেশি মুদ্রা ও বিভিন্ন ব্যাংকের ১০টি এটিএম কার্ড উদ্ধার করেছে র‌্যাব।

শনিবার দুপুরে রাজধানীর হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর হয়ে দেশত্যাগের সময় শামীমা নূর পাপিয়া ওরফে পিউসহ (২৮) চারজনকে আটক করে র‌্যাব-১।

এরমধ্যে জাল নোট, অস্ত্র ও মাদকের পৃথক তিন মামলায় পুলিশ পাপিয়া ও তার স্বামীর ১০ দিন করে রিমান্ড আবেদন করে। শুনানি শেষে আদালত তিন মামলায় তাদের ৫ দিন করে মোট ১৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে।

এছাড়া বিশেষ ক্ষমতা আইনে করা জাল নোটের মামলায় দম্পতির দুই সহযোগী শেখ তায়ি্বা ও সাব্বির খন্দকারের বিরুদ্ধে পুলিশ ১০ দিন করে রিমান্ড চাইলে, আদালত তাদের ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। এর আগে দুপুরে ৪ আসামিকে আদালতে হাজির করে পুলিশ।