বিসিবির কাছে কড়া ভাষায় কারণ জানতে চেয়েছে পিসিবি

15

স্পোর্টস ডেস্ক রিপোর্টঃ
বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডকে (পিসিবি) জানিয়েছে বাংলাদেশ পাকিস্তানে যেয়ে কেবল টি-টোয়েন্টি খেলতে চায়। টেস্ট খেলতে চায় না। ঠিক কি কারণে বিসিবি এমন বলছে তা কড়া ভাষায় জানতে চেয়েছেন পিসিবির প্রধান নির্বাহী ওয়াসিম খান।

বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরী ১৮ ডিসেম্বর ক্রিকবাজকে বলেন, ‘পাকিস্তানে ক্রিকেট ফেরাতে আমরা সবসময়ই পাকিস্তানের পাশে আছি। সেই কারণে এই মুহূর্তে আমরা আমাদের পুরুষ দলকে পাকিস্তানে কেবল টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলতে পাঠাতে চাচ্ছি।’

তিনি আরো বলেন, ‘এই মুহূর্তে আমরা চাচ্ছি টেস্ট সিরিজটি কোন নিরপেক্ষ ভেন্যুতে হোক। পাকিস্তান যেখানে চায় সেখানেই এটা হতে পারে। যেহেতু পাকিস্তান নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলে থাকে এটা তাদের জন্য খুব একটা সমস্যার হবে না। এই মুহূর্তে আমরা আসলে পাকিস্তানে যেয়ে লম্বা সময়ের জন্য অবস্থান করতে চাচ্ছি না। আমরা তাদের সাথে এটা নিয়ে যোগাযোগ করেছি।’

দশ বছর পর পাকিস্তানে ফিরেছে টেস্ট ক্রিকেট। লাল বলের ক্রিকেট খেলতে এই মুহূর্তে পাকিস্তানে অবস্থান করছে পূর্ণশক্তির শ্রীলঙ্কা দল। এদিকে পাকিস্তানে এসে প্রদর্শনী ম্যাচ খেলার কথা জানিয়েছে এমসিসিও। যে দলের অধিনায়ক থাকবেন এমসিসি সভাপতি কুমার সাঙ্গাকারা।

এমতাবস্থায় বিসিবির প্রস্তাবে রাজি হবার কোন সুযোগ নেই বলে জানিয়েছেন পিসিবির প্রধান নির্বাহী ওয়াসিম খান। তিনি এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, টেস্ট সিরিজ অন্যত্র আয়োজন করার কথা ভুলেও ভাবছে না পিসিবি।

গণমাধ্যমের সামনে ওয়াসিম খান বলেন, ‘বাংলাদেশ পাকিস্তানে এসে টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলতে আগ্রহী। কিন্তু তারা টেস্ট খেলতে চায় না। আমি আমার রেসপন্সে কঠোর থেকে বিসিবির কাছে জানতে চেয়েছি, কেনো? তারা টি-টোয়েন্টি খেলার কথা বলছে। কিন্তু টেস্ট ক্রিকেট অন্য দেশে যেয়ে খেলা এখন আর আমাদের জন্য কোন অপশন না।’

‘আইসিসি আমাদের সিকিউরিটি প্ল্যানকে গ্রিন সিগন্যাল দিয়েছে। শ্রীলঙ্কা দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলছে এই মুহূর্তে। সবকিছু এখন অব্দি ঠিকই আছে। বাংলাদেশের কাছে জানতে চাওয়া যে ঠিক কি কারণে তারা টেস্ট খেলতে চাচ্ছে না। আলোচনা এখনো শেষ হয়ে যায়নি।’