ফের হাইকোর্টে জামিন আবেদনের অনুমতি ওসি মোয়াজ্জেমের

১ই জুলাই, ২০১৯ || ০৯:০৯:৪২
9
Print Friendly, PDF & Email

নিউজবি২৪ অনলাইন রিপোর্টঃ
মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যার ঘটনায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে করা মামলায় ফেনীর সোনাগাজী থানার সাবেক ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোয়াজ্জেম হোসেন হাইকোর্টে ফের জামিন আবেদনের অনুমতি চেয়েছেন। এ বিষয়ে মঙ্গলবার (২ জুলাই) শুনানি হওয়ার কথা রয়েছে।

এর আগে সোমবার (১ জুলাই) বিচারপতি মঈনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি খিজির হায়াতের হাইকোর্ট বেঞ্চে ওসি মোয়াজ্জেমের পক্ষে জামিন আবেদনের অনুমতি চাওয়া হয়। আদালত এ বিষয়ে মঙ্গলবার আদেশ দেবেন বলে জানান।

সংশ্লিষ্ট কোর্টের সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল গাজী মামুনুর রশিদ বলেন, ‘সোমবার ওসি মোয়াজ্জেমের জামিন আবেদন নিয়ে তার আইনজীবীরা আদালতে এসেছিলেন। রাষ্ট্রপক্ষের আপত্তির কারণে আদালত জামিন আবেদনের অনুমতি দেয়নি। আগামীকাল এ বিষয়ে আদেশ দেবেন আদালত।’

এর আগে ১৬ জুন আগাম জামিন নিতে এসে হাইকোর্ট এলাকার বাইরে থেকে গ্রেফতার হন ওসি মোয়াজ্জেম। ওইদিন তাকে শাহবাগ থানায় রাখা হয়। এরপর ১৭ জুন তাকে আদালতে হাজির করা হলে তার জামিন আবেদন নাকচ করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন সাইবার ট্রাইব্যুনালের (বাংলাদেশ) বিচারক মোহাম্মদ আস শামস জগলুল হোসেন।

ফেনীর মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে তার মা শিরীন আক্তার বাদী হয়ে গত ২৭ মার্চ সোনাগাজী থানায় সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজউদ্দৌলার বিরুদ্ধে মামলা করেন। এরপর অধ্যক্ষকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের নামে নুসরাতের বক্তব্য ভিডিও করেন ওসি মোয়াজ্জেম। পরে সেই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়েও দেন তিনি।

ভিডিও করে তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে ওসি মোয়াজ্জেমের বিরুদ্ধে ১৫ এপ্রিল ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালে একটি মামলা করেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউটর ব্যারিস্টার সুমন। বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ ও মামলার নথি পর্যালোচনা করে ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক জগলুল হোসেন ২৭ মে ওসি মোয়াজ্জেমের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন।